টঙ্গীতে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে চিকিৎসক গ্রেপ্তার

 

টঙ্গী প্রতিনিধি: টঙ্গীতে হাসপাতালের ভিতরে এক নারী রোগীকে ধর্ষনের চেষ্টার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় চিকিৎসক হাসিবুল হাসান নামে এক চিকিৎসককে গ্রেপ্তার করেছে পশ্চিম থানা পুলিশ। শনিবার রাতে হোসেন মার্কেট এলাকায় আল-কারীম ইসলামী হাসপাতালে ভিতরে এ ঘটনা ঘটে।

Make the trade

 

এ ঘটনায় ওই ভোক্তভোগী নারী টঙ্গী পশ্চিম থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন। জানা যায়, ভোক্তভোগী ওই নারী গত দুই বছর ধরে হার্টের সমস্যায় ভুগতেছে। হঠাৎ অসুস্থতাবোধ করায় শনিবার সন্ধায় পুর্ব পরিচিত সবুজ ডাক্তারের পরামর্শে হোসেন মার্কেট এলাকায় আল-কারীম ইসলামী হাসপাতালের জরুরী বিভাগে যায়।

পুলিশ ভ্যানে গ্রেফতারকৃত ডাক্তার হাসিবুল হাসান

সেখানে জরুরী বিভাগ থেকে ইসিজিসহ আরও  অনেকগুলো পরীক্ষা করতে দেয়া হয়। ইসিজি ও পরীক্ষাগুলো করে রিপোর্ট নিয়ে একই দিনে রাত নয়টায় হাসপাতালের দোতলায় ডাক্তার হাসিবুল হাসানের চেম্বারে যায়। এসময় চেম্বারের ভিতরে অবস্থান করা এক নার্স রোগীর প্রেসার মাপার পর নার্সকে বের করে দিয়ে দরজা বন্ধ করে দেয় ডাক্তার হাসিবুল।

 

পরে ডাক্তার তার চেম্বারের ভিতরে রোগীকে বেডে শোতে বলেন। তারপর ডাক্তার আমার বুকসহ শরীরের বিভিন্ন স্পর্শকাতর স্থানে হাত দিতে থাকে। এসময় ভুক্তভোগী রোগী চেচামেচি ও ডাক চিৎকার করতে থাকে। অবস্থা বেগতিক দেখে কিছুক্ষন পর ডাক্তার নিজেই দরজা খুলে দেয়। পরে তার সাথে আসা মামাতো ভাই নয়নসহ হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকে বিষয়টি জানায় ওই নারী।

 

পুলিশ খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে এসে চিকিৎসককে গ্রেফতার করে। টঙ্গী পশ্চিম থানার অফিসার ইনচার্জ শাহ আলম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, ভুক্তভোগী নারী থানায় একটি অভিযোগ করেছে। ডাক্তারকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। এ ঘটনায় মামলা হয়েছে।

Make the trade