কমার্শিয়াল সিনেমায় আগ্রহী নন বৃষ্টি

বিনোদন প্রতিবেদক : ব্যক্তিগত কারণে অনেকদিন শোবিজ থেকে বিরতি নিয়েছিলেন মডেল ও অভিনেত্রী বৃষ্টি ইসলাম। লম্বা সময় বিরতি দিয়ে করোনার আগে ফিরেছিলেন কাজে। এরপর দুটি নাটকে কাজও করেছিলেন। সেই সঙ্গে বেশকিছু মুঠোফোন কোম্পানির প্রমোশনাল শুটে অংশও নিয়েছিলেন। তবে এরপর নতুন কোনো কাজে দেখা যায় নি তাকে। আলোচনাতেও তাই নেই।

করোনা মহামারির মধ্যে না ফিরলেও এখন নিয়মিতই কাজ করবেন বলেই জানান এই অভিনেত্রী। জানান, মাঝখানে কাজের প্রস্তাব এলেও তা ফিরিয়ে দিয়েছি। কলকাতায় কিছু প্রজেক্টের বিষয়ে কথাবার্তা চলছিলো। করোনার কারণে আর করতে পারিনি। বৃষ্টি আরো বলেন, এদিকে ওটিটি প্লাটফর্ম ও ওয়েবের বেশকিছু কাজের প্রস্তাব পেয়েছি।

কিন্তু সেগুলোতে তারা যেভাবে চায়, সেটা আমার পক্ষে করা সম্ভব নয় বলে ফিরিয়ে দিয়েছি। নিজেকে খোলামেলা দেখিয়ে কাজ করতে চাই না। কাজগুলো অনেকটা এইটিন প্লাসেরই বলা যায়। এগুলা করা আমার পক্ষে কখনই সম্ভব না। সিনেমায় কাজ করা প্রসঙ্গে বৃষ্টি বলেন, সিনেমার প্রস্তাব যে পাই নি তা না। পেয়েছি কিন্তু মনমতো না হওয়ায় করিনি। কমার্শিয়াল সিনেমা করার ইচ্ছে নেই আমার। অফ ট্র্যাকের গল্প আমার ভীষণ পছন্দ, সেরকম হলে অবশ্যই কাজ করবো।

‘দেবী’ সিনেমার মতো গল্পে কাজ করার বেশি আগ্রহ আমার। কিন্তু এরকম গল্পে এখন অনেকেই রিস্ক নিতে চান না আমাদের এখানে। কমার্শিয়াল সিনেমায় কাজ করে আমিও রিস্ক নিতে চাই না। বৃষ্টি এখন সিঙ্গেল নাকি তার জীবনে অন্য জড়িয়েছেন বা বিয়ে কবে করছেন? এমন প্রশ্নে সহসায় এই অভিনেত্রী এক গাল হেসে জানান, আমি এখন সিঙ্গেল। আর রিলেশন মানেই এখন বাড়তি ঝামেলা। সময় হলেই বিয়ে করবো। কাজ আগে, বিয়ে পরে।

করোনা শুরুর সময়ে অন্য অনেক তারকার মতো বৃষ্টিও অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছিলেন। তবে সেটা একান্তই আড়ালে থেকে। রাজধানীর উত্তরা, গুলশান, পুরান ঢাকা, কামরাঙ্গীর চর এলাকার মানুষদের পাশে দাঁড়িয়ে তাদের মাঝে নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যাদি বিতরণ করেছেন।